শিক্ষার্থীদের সঙ্গে পুলিশের রাতভর সংঘর্ষ, ক্যাম্পাসে আগুন

  • ১৮-Nov-২০১৯ ১১:৪১ পূর্বাহ্ণ
Ads

:: আন্তর্জাতিক ডেস্ক ::

হংকংয়ের বিক্ষোভ নতুন করে সহিংসতার দিকে মোড় নিয়েছে। পুলিশ দেশটির একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস ঘিরে রেখেছে। ওই ক্যাম্পাসের ভেতর কয়েকশ বিক্ষোভকারী আটকা পড়েছেন।

রোববার রাতে পুলিশের সঙ্গে ব্যাপক সংঘর্ষ বাঁধে বিক্ষোভকারীদের। সোমবার সকালে বিক্ষোভকারীরা ক্যাম্পাস থেকে বেরিয়ে আসার চেষ্টা করলে পুলিশ টিয়ার গ্যাস ও রাবার বুলেট ছুড়েছে। এর আগে পলিটেকনিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ওই ক্যাম্পাসে প্রবেশের চেষ্টা করলে পুলিশকে লক্ষ্য করে পেট্রল বোমা ও ইট ছুড়েছে বিক্ষোভকারীরা।

সোমবার সকালে একদল বিক্ষোভকারী ক্যাম্পাস ছেড়ে বেরিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে পুলিশের টিয়ার গ্যাস ও রাবার বুলেটের মুখে তারা পিছু হটেন।

এদিকে সকালে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান প্রফেসর জিন গুয়াং ট্যাং একটি ভিডিও বার্তা প্রকাশ করেছেন। সেখানে তিনি বিক্ষোভকারী শিক্ষার্থী ও পুলিশের মধ্যে সমঝোতার চেষ্টা চালাচ্ছেন বলে জানিয়েছেন। ওই ভিডিও বার্তায় তিনি বিক্ষোভকারীদের শান্তিপূর্ণভাবে ক্যাম্পস ত্যাগ করারও নিশ্চয়তা দিয়েছেন।

তবে তার এই ভিডিও বার্তা খুব একটা কাজে আসেনি বলেই মনে হয়। কেননা অবরুদ্ধ ক্যাম্পসের মধ্যে এখনও বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছেন শত শত শিক্ষার্থী।

গত কয়েকদিন ধরেই হংকংয়ের পলিটেকনিক বিশ্ববিদ্যাল শিক্ষার্থীরা সেখানকার চীনাপন্থী শাসকেদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ চালিয়ে যাচ্ছেন। কিন্তু রোববার রাতে সেই বিক্ষোভ মারাত্মক রূপ নেয়। পুলিশ ক্যাম্পাসের ভিতরে প্রবেশের চেষ্টা চালালে ভিতর থেকে ইট পাটকেল আর পেট্রোল বোমা ছুড়ে মারেন বিক্ষোভকারীরা। এমনকি তারা পুলিশকে লক্ষ্য করে তীর ধনুক পর্যন্ত ছুড়ে মেরেছে বলেও জানিয়েছেন বিবিসি প্রতিনিধি। এ সময় হাঁটুতে তীরবিদ্ধ হয়ে আহত হয়েছেন এক পুলিশ কর্মকর্তা। জবাবে টিয়ার গ্যাস, জল কামান আর রাবার বুলেট ছুড়ে পুলিশ।

সোমবার স্থানীয় সময় ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ক্যাম্পাসের দখল নেয়ার জন্য পুলিশ অগ্রসর হতে শুরু করলে বিক্ষোভকারীদের সাথে ছোট ছোট বিচ্ছিন্ন সংঘর্ষ শুরু হয়। সেসময় বিক্ষোভকারীরা পুলিশের দিকে পেট্রল বোমা ছুড়লে ক্যাম্পাসে অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। কিছুক্ষণ সংঘর্ষ চলার পর পুলিশ পিছু হটে। ক্যাম্পাসের ভেতরে এখনও শত শত বিক্ষোভকারী অবস্থান করছেন বলে জানা গেছে।

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ শিক্ষার্থীদের রোববার সন্ধ্যার মধ্যে ক্যাম্পাস ছেড়ে যাওয়ার নির্দেশ দিলেও তারা তা গ্রাহ্য করেনি। এখনও ক্যাম্পাসে প্রচুর শিক্ষার্থী বিক্ষোভ করছেন বলে জানা গেছে।

এদিকে পুলিশের মুখপাত্র লুইস লাউ ফেসবুকে প্রচারিত এক বক্তব্যে বিক্ষোভকারীদের ওপর হামলার হুমকি দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘শিক্ষার্থীরা যদি পুলিশ কর্মকর্তাদের দিকে পেট্রল বোমা, তীরের মত বিপজ্জনক অস্ত্র ছুড়ে মারা অব্যাহত রাখে তাহলে আমাদের গুলি করা ছাড়া আর কোনো পথ খোলা থাকবে না।’

 

/কে 

Ads
Ads