যৌতুকের টাকা উঠাতে শ্বশুরের ধর্ষণ!

  • ৩-Jul-২০১৯ ১১:৩০ পূর্বাহ্ণ
Ads

:: সীমানা পেরিয়ে ডেস্ক ::

বিয়ের পর থেকেই শ্বশুরবাড়ির লোকজন বারবার টাকা চেয়ে আসছে। টাকার জন্য তার ওপর নিয়মিত শারীরিক এবং মানসিক অত্যাচার চলত বলেও অভিযোগ রয়েছে।

ছোট্ট মেয়ের মুখের দিকে তাকিয়ে সেসব অত্যাচার সহ্য করে সংসার করছিলেন ওই নারী। কিন্তু আরো ভয়ঙ্কর কাণ্ড ঘটে গেল। অভিযোগ উঠেছে, এবার চাচা শ্বশুর ওই তরুণীকে ধর্ষণ করেছে। স্বামীকে সে কথা জানিয়ে প্রতিকার পাওয়া তো দূরের কথা উল্টো বেধড়ক মারধর করে শিশুকন্যা-সহ বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয়া হয়েছে তাকে।

স্বামী এবং শ্বশুরবাড়ির আত্মীয় পরিজনদের বিরদ্ধে এই অভিযোগ তুলে রবিবার রাতে পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ জানিয়েছে ভারতের নবদ্বীপের তমালতলার ওই নারী।

তার অভিযোগের ভিত্তিতে রবিবার রাতেই পুলিশ ওই তরুণীর স্বামী, ননদ এবং চাচা শ্বশুরকে গ্রেপ্তার করেছে। অভিযুক্ত ব্যক্তি নবদ্বীপ আদালতের মুহুরি। শান্তিপুরের বাসিন্দা ওই তরুণীর সঙ্গে সাত বছর আগে বিয়ে হয় নবদ্বীপের যুবকের।

অভিযোগ উঠেছে, বিয়ের পর থেকেই যৌতুকের দাবিতে তার ওপর অত্যাচার করা হয়। ওই তরুণীর দাবি, শারীরিক এবং মানসিক নির্যাতন চালাতেন স্বামী, শাশুড়ি, ননদ এবং চাচা শ্বশুর।

তরুণীর মায়ের অভিযোগ, বিয়েতে মেয়েকে তারা সাধ্য মতো দিলেও শ্বশুরবাড়ির লোকজন সন্তুষ্ট হয়নি। মেয়েকে বাপের বাড়ির সঙ্গে কোনো সম্পর্ক রাখতে দেয়া হত না। এর মধ্যে তাদের এক কন্যা সন্তান হয়। তাতেও অবস্থার কোনো পরিবর্তন হয়নি।

রবিবার রাতে নবদ্বীপ থানায় লিখিত অভিযোগে ওই তরুণী জানান, গত ২৬ জুন সকাল ১০টা নাগাদ চাচা শ্বশুর তাকে কুপ্রস্তাব দেন। কিন্তু তিনি প্রবল আপত্তি করায় তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে তিনি তাকে ধর্ষণ করেন। বিষয়টি স্বামী ও শাশুড়িকে জানালে, স্বামী উল্টো তাকে বেধড়ক মারধর করে। এমনকি গলায় বেল্ট পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা করে। পর দিন সকালে আবারো মারধর করে সাড়ে চার বছরের মেয়েসহ তাকে বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয়।

রবিবার রাতে তিনি পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। পুলিশ এ ব্যাপারে তিনজনকে গ্রেপ্তার করেছে। সোমবার নবদ্বীপের জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেটের আদালতে আটক তিনজনকে হাজির করানো হলে বিচারক তাদের ১৪ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন। আদালতের সরকারি কৌঁসুলি নবেন্দু মণ্ডল বলেন, তাদের বিরুদ্ধে পুলিশ ভারতীয় দণ্ডবিধির ৪৯৮এ, ৩৭৬, ৩২৩, ৩০৭ এবং ৩৪ ধারায় মামলা করেছে।

 

/কে 

Ads
Ads