রোববার ২৮ নভেম্বর ২০২১ ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

শিরোনাম: টিকাগ্রহীতা সাড়ে ৯ কোটি ছাড়াল    রংপুরে ট্রাকচাপায় নিহত ৪    ‘৮০ শতাংশ বাস মালিক গরিব, দু’একটা বাসে সংসার চলে’    মহাসড়কে টোল আদায়ে বিল পাস    'ইসলামের সঙ্গে সাংঘর্ষিক কোনো আইন পাস হবে না'    সেনাবাহিনীতে সৈনিক পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি    প্রথমবার বিশ্বকাপে বাংলাদেশের মেয়েরা   
https://www.dailyvorerpata.com/ad/Inner Body.gif
সহপাঠীকে জোরপূর্বক চুম্বন, ভিডিও টিকটকে!
বরগুনা প্রতিনিধি
প্রকাশ: রোববার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২১, ৬:১৯ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

অষ্টম শ্রেণির ছাত্রীকে জোর করে চুম্বনের ভিডিও ধারণ করে তা টিকটকে ছড়িয়ে দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ব্যাপারে  মামলা করতে গেলে থানা মামলা হয়নি বলে অভিযোগ করেছেন মেয়েটির মা।

ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার (২৬ সেপ্টেম্ব) বরগুনার পাথরঘাটায়।


মেয়েটি জানিয়েছে, তার সহপাঠী হাজিরখাল গ্রামের সৌদি প্রবাসী সগির খানের ছেলে নাঈম দীর্ঘদিন ধরে তাকে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। স্কুলে যাওয়া-আসার পথে তাকে উত্ত্যক্ত করত। গত বুধবার স্কুল ছুটির পর নাঈম ক্লাস থেকে মেয়েটির ব্যাগ নিয়ে আগেই বের হয়। এ সময় ব্যাগ চাইতে গেলে নাঈম তাকে জড়িয়ে ধরে জোরপূর্বক চুম্বন করে। সবুজ নামে আরেক সহপাঠী মোবাইল ফোনে তা ভিডিও করে। পরে সেই ভিডিও টিকটকে ছড়িয়ে দেয় নাঈম।

মেয়েটির মা বলেন, নাঈমের বিরুদ্ধে এর আগে তার মামার কাছে বিচার দিয়েও কোনো লাভ হয়নি। বিষয়টি নিয়ে স্কুলের প্রধান শিক্ষকের কাছে গেলে তিনি নাঈমের পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। পরে শুক্রবার রাতে পাথরঘাটা থানার গিয়ে ওসি আবুল বাশারকে জানিয়ে মামলা করতে চান। কিন্তু ওসি দীর্ঘক্ষণ তাদের বসিয়ে রাখেন। একপর্যায়ে ভিজিটিং কার্ড ধরিয়ে দিয়ে পরে আসতে বলেন।

তিনি বলেন, যদি আইনের আশ্রয় নিতে না পারি, তাহলে যাব কোথায়? সমাজে মুখ দেখানোর উপায় নেই। এখন আমাদের আত্মহত্যা করা ছাড়া আর কোনো পথ নেই।



স্কুলের প্রধান শিক্ষক আব্দুল জব্বার হোসেন গণমাধ্যমকে জানান, বিষয়টি নাঈমের পরিবারকে জানালেও তারা তাকে হাজির করতে পারেনি। সে কারণে আমরা বিষয়টি নিয়ে সমাধানে যেতে পারিনি।

নাঈমের মা বলেন, তিনি এ সম্পর্কে কিছুই জানেন না। তবে তার ছেলেকে বিভিন্নজন মোবাইলে হুমকি দেওয়ার পর থেকে সে পলাতক। বিষয়টি পৌর মেয়র ও স্কুলের প্রধান শিক্ষক সমাধান করে দেবেন বলে জানান তিনি।

পাথরঘাটা থানার ওসি আবুল বাশার জানান, স্কুলছাত্রী ও তার মা থানায় এসে বিষয়টি জানিয়ে গেছেন। তারা মামলা করার জন্য আসেননি, মৌখিক অভিযোগ করতে এসেছিলেন। তারা লিখিত অভিযোগ দিলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, নাঈমের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানিসহ মারামারি করার অভিযোগ রয়েছে। এ কারণে পাথরঘাটা কেএম মডেল সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে তাকে বহিস্কার করা হয়। পরে সে আনোয়ার হোসেন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ভর্তি হয়।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
http://www.dailyvorerpata.com/ad/Comp 1_3.gif
https://www.dailyvorerpata.com/ad/last (2).gif
এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: [email protected] [email protected]