শনিবার ১৭ এপ্রিল ২০২১ ৩ বৈশাখ ১৪২৮

শিরোনাম: কবরীর মৃত্যু দেশের চলচ্চিত্র অঙ্গনের জন্য অপূরণীয় ক্ষতি: রাষ্ট্রপতি    দেশের চলচ্চিত্রে কবরী এক উজ্জ্বল নক্ষত্র: প্রধানমন্ত্রী    ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস আজ    সারাহ বেগম কবরী আর নেই    আওয়ামী লীগে অনুপ্রবেশ ঠেকাতেই হবে    স্বেচ্ছাসেবক লীগের উদ্যোগে মানবতার ভ্যান চালু    মামুনুল-বাবুনগরীসহ হেফাজতের শীর্ষ নেতাদের গ্রেফতার দাবি   
করোনা ভ্যাকসিন প্রাপ্তি ও প্রয়োগে সাফল্য বাংলাদেশ: অধ্যাপক ড. জাকারিয়া মিয়া
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১০:৩৮ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

করোনা ভ্যাকসিন প্রাপ্তি ও প্রয়োগে সাফল্য বাংলাদেশ: অধ্যাপক ড. জাকারিয়া মিয়া

করোনা ভ্যাকসিন প্রাপ্তি ও প্রয়োগে সাফল্য বাংলাদেশ: অধ্যাপক ড. জাকারিয়া মিয়া

করোনা মহামারি মোকাবেলায় সরকার শুরু থেকেই সকল পদক্ষেপ গ্রহণ করেছিল। জনগণের নিরাপত্তা, অর্থনৈতিক নিরাপত্তা, এবং চিকিৎসা সংক্রান্ত সকল সাপোর্টে শুরু থেকেই আমাদের শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী উদ্যোগ নিয়েছিলেন যার সুফল এখন আমরা ভোগ করছি। এই সাফল্যের দুটি কারণের জন্য হয়েছে। একটি হচ্ছে করোনা ম্যানেজমেন্টের ব্যবস্থাপনা ও সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনা। 

দৈনিক ভোরের পাতার নিয়মিত আয়োজন ভোরের পাতা সংলাপের ২৬১তম পর্বে বৃহস্পতিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) আলোচক হিসাবে উপস্থিত হয়ে এসব কথা বলেন যুক্তরাজ্য স্টাডি সার্কেলের চেয়ারপার্সন ও যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি সৈয়দ মোজাম্মেল আলী,  স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের (স্বাচিপ) এর মহাসচিব অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ আবদুল আজিজ,  ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়ার ইংরেজি বিভাগের অধ্যাপক অধ্যাপক ড. শাহিনুর রহমান,  জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের চেয়ারম্যান, প্রগতিশীল শিক্ষক সংগঠন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় (নীলদল) এর সভাপতি, লাইফ এন্ড আর্থ সাইন্স অনুষদের প্রাক্তন ডিন অধ্যাপক ড. জাকারিয়া মিয়া। দৈনিক ভোরের পাতা সম্পাদক ও প্রকাশক ড. কাজী এরতেজা হাসানের পরিকল্পনা ও নির্দেশনায় অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন সাবেক তথ্য সচিব নাসির উদ্দিন আহমেদ।

অধ্যাপক ড. জাকারিয়া মিয়া বলেন, আজকের ভোরের পাতা সংলাপের বিষয় ভ্যাকসিন সাফল্যে বাংলাদেশ সম্বন্ধে আমি আমার মতো বলতে চাই যে, ভ্যাকসিন প্রাপ্তি ও প্রয়োগে সাফল্য বাংলাদেশ। এই সাফল্যের দুটি কারণের জন্য হয়েছে। একটি হচ্ছে করোনা ম্যানেজমেন্টের ব্যবস্থাপনা ও সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনা। আর একটা প্রাকৃতিক বিষয় যোগ করতে চাচ্ছি, যেটা হলও আল্লাহ‌র রহমত। সারা পৃথিবীতে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে দীর্ঘ এক বছর ধরে লড়াই করছে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশ। বিশ্বের উন্নত কিছু দেশে ডিসেম্বরে টিকাদান কর্মসূচি শুরু হলেও অনেক দেশ এখনো টিকার সরবরাহ পায়নি। বিশ্বের বড় বড় দেশ যখন এখনো করোনার টিকা প্রদান কার্যক্রম শুরু করতে ব্যর্থ। সারা বিশ্ব যখন টিকার সরবরাহ নিশ্চিত করার জন্য হিমশিম খাচ্ছে, তখন করোনা প্রতিরোধের লড়াইয়ে সফলতার দিক থেকে প্রথম থেকেই সম্মুখ সারিতে অবস্থান করছে বাংলাদেশ। ৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১-এ দেশব্যাপী আনুষ্ঠানিকভাবে করোনাভাইরাসের গণটিকা কার্যক্রম শুরুর মধ্য দিয়ে করোনাভাইরাস মোকাবেলায় বাংলাদেশের ইতিহাসে রচিত হলো নতুন মাইলফলক। আমাদের দেশের গণ টিকা প্রদানের ক্ষেত্রে অসাধারণ সাফল্য অর্জনের পূর্ব অভিজ্ঞতা রয়েছে। সুতরাং, স্থানীয় পর্যায়ে এবং শহরগুলোতে রাস্তায় এবং বস্তিতে বসবাসকারী মানুষদের ঘরে ঘরে গিয়ে নিবন্ধন এবং টিকা দেওয়ার জন্য পর্যাপ্ত প্রশিক্ষিত মানবসম্পদ রয়েছে। সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট করার জন্য করোনার ভ্যাকসিন নিয়ে বাংলাদেশে অনেক নেতিবাচক অপপ্রচার করা হয়েছিল। এমনটিও বলা হয়েছিল যে ভিভিআইপিরা এই টিকা গ্রহণ না করে সাধারণের ওপর পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া অনুসন্ধান চালাবে। কিন্তু সেই অপপ্রচারকে ভুল প্রমাণিত করে মন্ত্রিপরিষদের সদস্যসহ অসংখ্য বিশিষ্ট নাগরিক স্বেচ্ছায় এই টিকা গ্রহণ করছেন। সকল দ্বিধাদ্বন্দ্ব পার করে প্রতিদিন লাখ লাখ মানুষ উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে টিকা গ্রহণ করছেন।

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


আরও সংবাদ   বিষয়:  ভোরের পাতা সংলাপ   অধ্যাপক ড. জাকারিয়া মিয়া  







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  

সারাদেশ

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: [email protected] [email protected]