বুধবার ৩ মার্চ ২০২১ ১৮ ফাল্গুন ১৪২৭

শিরোনাম: খালেদা জিয়ার সাজা স্থগিতের মেয়াদ বাড়াতে ফের আবেদন    সাতছড়িতে বিজিবির অভিযানে রকেট লঞ্চারের ১৮ গোলা উদ্ধার    যে কারণে বিএনপির অনুষ্ঠানেই উপেক্ষিত খালেদা জিয়া!    জামিন পেলেন কার্টুনিস্ট কিশোর    'নূন্যতম লজ্জাবোধ থাকলে ইসি মাহবুবের সমালোচনা করতেন না সিইসি'    বিএনপি-জামায়াত সম্পর্কে নতুন মোড়!    ইসির মামলায় ডা. সাবরিনার বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন ৫ এপ্রিল   
বাংলাদেশে ৬৪ শতাংশের বেশি মানুষ করোনা টিকা নিতে আগ্রহী: জরিপ
ভোরের পাতা ডেস্ক
প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ১১ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:৫৩ এএম | অনলাইন সংস্করণ

বাংলাদেশে ৬৪ শতাংশের বেশি মানুষ করোনা টিকা নিতে আগ্রহী: জরিপ

বাংলাদেশে ৬৪ শতাংশের বেশি মানুষ করোনা টিকা নিতে আগ্রহী: জরিপ

বাংলাদেশের ৬৪ শতাংশের বেশি মানুষ করোনা টিকা নিতে আগ্রহী। ফেসবুক এবং যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব মেরিল্যান্ডের সাম্প্রতিক এক যৌথ সমীক্ষায় এমন তথ্য উঠে এসেছে।

বুধবার (১০ ফেব্রুয়ারি) এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায় ফেসবুক।

তবে পৃথিবীর সবখানে মানুষের কোভিড টিকা নেওয়ার আগ্রহ এক রকম নয়। যেমন, ভিয়েতনামে যেখানে গড়ে ৮৬ শতাংশ মানুষের টিকা নেওয়ার আগ্রহ আছে, সেখানে ভারতে ৭২ শতাংশের।

ডেটা ফর গুড প্রোগ্রামের অংশ হিসেবে ফেসবুক একাডেমিক সহযোগীদের সঙ্গে নিয়ে এই জরিপ পরিচালনা করে। স্বাস্থ্য গবেষকদের আরও ভালো মনিটরিংয়ে সহায়তা করতে ও কোভিড-১৯ এর বিস্তার সম্পর্কে জানতে অন্যতম বৃহত্তম এই জরিপে ২০২০ সালের এপ্রিল মাস থেকে বিশ্বের ২০০টি দেশের প্রায় ৪ কোটি মানুষ অংশ নেয়।

বিশ্ব জুড়ে টিকাদান কর্মসূচিতে সহযোগিতার লক্ষ্যে ফেসবুক বিভিন্ন উদ্যোগ নিতে যাচ্ছে। কোভিড-১৯-এর টিকা ও রোগ প্রতিরোধমূলক তথ্য মানুষের কাছে পৌঁছে দিতে দেশে দেশে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়, এনজিও ও জাতিসংঘের উন্নয়নমূলক সংস্থাগুলোকে ১২ কোটি ডলারের অ্যাড ক্রেডিট দেওয়া হচ্ছে।

বাংলাদেশে স্বাস্থ্য সচেতনতা বিষয়ক তথ্য সরবরাহ করতে ফেসবুক স্বাস্থ্য অধিদফতর এবং আইসিটি বিভাগের সঙ্গে সম্মিলিতভাবে কাজ করেছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এবং স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের দ্বারা শেয়ার করা সঠিক তথ্যগুলি মানুষ যেন সহজেই পেতে পারে, তা নিশ্চিত করার জন্য ফেসবুকের কোভিড-১৯ ইনফরমেশন সেন্টারটির বাংলা ভার্সনও দেয়া আছে।

উল্লেখ্য, গত ২৫ জানুয়ারি ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকা ভ্যাকসিনের ৫০ লাখ ডোজ পেয়েছে বাংলাদেশ। সেরাম ইনস্টিটিউটের কাছ থেকে তিন কোটি ডোজ অক্সফোর্ড ভ্যাকসিন কিনেছে সরকার। চুক্তি অনুযায়ী, বাংলাদেশ প্রতি মাসে ৫০ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন পাবে। এ ছাড়া, ভারত সরকারের কাছ থেকে উপহার হিসেবে অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার ২০ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন পেয়েছে বাংলাদেশ। ভারত থেকে আসা এই ভ্যাকসিন ছাড়াও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ও গ্যাভির ভ্যাকসিন অ্যালায়েন্সের নেতৃত্বে পরিচালিত কোভ্যাক্স সুবিধার আওতায় বাংলাদেশ পাবে ছয় কোটি ৮০ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন।

ভোরের পাতা/ই

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  

সারাদেশ

এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ
সম্পাদক ও প্রকাশক: ড. কাজী এরতেজা হাসান
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত দৈনিক ভোরেরপাতা
বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৯৩ কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫।
ফোন:৮৮-০২-৮১৮৯১৪১, ৮১৮৯১৪২, বিজ্ঞাপন বিভাগ: ৮১৮৯১৪৪, ফ্যাক্স : ৮৮-০২-৮১৮৯১৪৩, ইমেইল: [email protected] [email protected]