রোকেয়া হলে ভোটগ্রহণ বন্ধ

  • ১১-মার্চ-২০১৯ ১১:৪৫ অপরাহ্ন
Ads

:: ভোরের পাতা ডেস্ক ::

সুষ্ঠু ভোটগ্রহণের পরিবেশের অভাব এবং কারচুপির অভিযোগ তুলেছেন রোকেয়া হলের ছাত্রীরা। তাদের অভিযোগ এ হলে তিনটি ব্যালট বাক্স আগে থেকেই ভরে রাখা হয়েছে। ছাত্রীরা বলছেন, ব্যালট বাক্স নিয়ে প্রশাসন তাদের সঙ্গে লুকোচুরি করছে। সবগুলো বাক্স তাদের দেখানো হচ্ছে না।   

তাদের অভিযোগ, কুয়েত মৈত্রী হলের মতো এ হলেও আগে থেকেই ব্যালট বাক্স ভরে রাখা হয়েছে। এ নিয়ে সেখানে হট্টগোল তৈরী হলে ভোটগ্রহণ বন্ধ করে দেয়া হয়।

এর আগে অন্যান্য হলে আজ সোমবার সকাল ৮টা থেকে ডাকসু নির্বাচন শুরু হলেও রোকেয়া হলে এক ঘণ্টা দেরিতে ভোটগ্রহণ শুরু হয়। এসময় একাধিক প্রার্থী অভিযোগ করে যে তিনটি ব্যালট বাক্স সরিয়ে ফেলা হয়েছে।

বাম জোট থেকে রোকেয়া হলের সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী জিএস মুনিরা দিলশাদ ইরা বলেন, ‘সকালে যখন ভোটগ্রহণ শুরু হয়, তখন আমরা ব্যালট বাক্স দেখতে চাইলেও দেখানো হয়নি। পরে আমরা বিক্ষোভ শুরু করলে ৯টার দিকে ব্যালট বাক্স দেখানো হয়। রোকেয়া হলে ব্যালট বাক্স থাকার কথা ৯টি। তবে আমাদেরকে দেখানো হয়েছে ছয়টি।

রোকেয়া হলে ভোটকেন্দ্র করা হয়েছে টিভি রুমে। সেখানে গণমাধ্যম কর্মীদের যেতে দেয়া হচ্ছে না। হল গেট থেকে বলা হচ্ছে এখন ভেতরে যাওয়া যাবে না।

ভোট দেরিতে শুরু করার কারণ সম্পর্কে রোকেয়া হলের প্রশাসনিক কর্মকর্তা সালমা আক্তার বলেন, কিছু জটিলতার কারণে নির্ধারিত সময়ে ভোট শুরু করা যায়নি। তবে কী ধরনের জটিলতা সে বিষয়ে তিনি কিছু বলতে রাজি হননি।

 

/কে 

Ads
Ads