আহত ফেরদৌস ও পূর্ণিমা ফিরছেন ঢাকায়

  • ১৩-ফেব্রুয়ারী-২০১৯ ০৬:৫৬ পূর্বাহ্ণ
Ads

কথা ছিল আরও তিন দিন শুটিং হবে। কিন্তু একটি দুর্ঘটনা সবকিছুই ওলট-পালট করে দেয়। মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় ছবির প্রধান দুই অভিনয়শিল্পী ফেরদৌস ও পূর্ণিমার আহত হওয়ার ঘটনায় সাময়িকভাবে শুটিং বন্ধ করে দেন পরিচালক। ভাবছিলেন, সাময়িক বিশ্রাম শেষে আবার শুটিং শুরু করবেন। চিকিৎসকের কড়া নির্দেশ, বেশ কিছুদিন বিশ্রামে থাকতে হবে ফেরদৌস ও পূর্ণিমাকে। শিল্পীদের সুস্থতার কথা ভেবে তাই শুটিং বন্ধ করে দেন পরিচালক নঈম ইমতিয়াজ নেয়ামূল। আজ সোমবার রাত কিংবা কাল মঙ্গলবার সকালে পরিচালকসহ শিল্পীদের ঢাকায় ফেরার কথা রয়েছে বলে জানা গেছে।

নোয়াখালীর চরমণ্ডলে কয়েক দিন আগে শুরু হয় ‘গাঙচিল’ ছবির শুটিং। শুরুর দিন থেকেই শুটিংয়ে অংশ নেন নায়ক ফেরদৌস ও নায়িকা পূর্ণিমা। তবে গতকাল রোববার শুটিং শুরুর কিছুক্ষণ পরই ঘটে দুর্ঘটনা। চিত্রনায়িকা পূর্ণিমা মোটরসাইকেল চালানোর সময় স্লিপ কেটে উল্টে গেলে দুর্ঘটনা ঘটে। পেছনে বসা ফেরদৌস ছিটকে রাস্তায় পড়ে যান। এরপর দ্রুত তাঁদেরকে বসুরহাট সেন্ট্রাল হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসাসেবা দেওয়া হয়।

আজ সোমবার সন্ধ্যায় প্রথম আলোর সঙ্গে আলাপে নেয়ামূল বলেন, ‘বুধবার পর্যন্ত শুটিং বাকি ছিল। হঠাৎ করে এই দুর্ঘটনা সব পরিকল্পনা এলোমেলো করে দেয়। এদিকে পূর্ণিমা আপার হাতের ব্যথা বেড়েছে। ফেরদৌস ভাইয়ের অবস্থাও খুব একটা সুবিধার না। তাই ঝুঁকি নিয়ে আর কোনো কাজ করতে চাইনি। দুজনের সুস্থতার পর নতুন পরিকল্পনা করে আবার শুটিং শুরু করব।’

৬ ফেব্রুয়ারি থেকে চরমণ্ডল আর চর এলাহীতে ‘গাঙচিল’ ছবির শুটিংয়ে অংশ নেন ফেরদৌস আর পূর্ণিমা। গতকাল তাঁদের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন আনিসুর রহমান মিলন। সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের উপন্যাস ‘গাঙচিল’ নিয়ে ছবিটি নির্মিত হচ্ছে।

Ads
Ads