যা নিয়ে ফেসবুকে তোলপাড়!

  • ৬-Aug-২০১৯ ০২:৪১ পূর্বাহ্ণ
Ads

:: ভোরের পাতা ডেস্ক ::

ডেঙ্গু প্রতিরোধে রাজধানীসহ সারাদেশে পালিত হচ্ছ ‘ডেঙ্গু সচেতনতা ও মশকনিধন কর্মসূচি’। সম্প্রতি রাজধানীতে এই কর্মসূচি পালনের সময় রাষ্ট্রের বিভিন্ন দায়িত্বশীল ব্যক্তিবর্গকে পরিষ্কার রাস্তা ঝাড়ু দিতে দেখা গেছে। মুহূর্তেই সেই ছবি সামজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে, হয়ে যায় ভাইরাল। চলে নানা ব্যঙ্গ-বিদ্রুপ। তীব্র সমালোচনার মুখে পড়ছেন তারা।

সম্প্রতি সামাজিক মাধ্যমে রাস্তা ঝাড়ু দেয়ার বেশ কিছু ছবি ভাইরাল হয়েছে। সেখানে দেখা গেছে, বিভিন্ন স্তরের দায়িত্বশীল ব্যক্তিরা বিভিন্ন কর্মসূচিতে রাস্তা ঝাড়ু দিচ্ছেন। তবে সেই রাস্তায় কোনো ময়লা-আবর্জনা নেই। আর কোথাও কোথাও দেখা গেছে, পরিষ্কার জায়গায় ময়লা ফেলে সেগুলো পরিষ্কার করা হচ্ছে। রাজনীতিবিদ থেকে শুরু করে নায়ক-নায়িকা, সবার ঝাড়ু হাতের ছবি এখনো ঘুরছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। রাস্তা ঝাড়ু দিয়ে তারা কীভাবে ডেঙ্গু প্রতিরোধ করবেন, তা নিয়েই সচেতন নাগরিকদের যত প্রশ্ন। কারণ ডেঙ্গুর জন্য দায়ী এডিস মশার বিচরণ থাকে স্বচ্ছ পানিতে।

তবে ট্রলের শিকার ব্যক্তিদের কেউ কেউ সমালোচনার কড়া জবাব দিচ্ছন। আবার কেউ যুক্তি দিয়ে কারণ ব্যাখ্যা করছেন। তবে সমালোচিত ব্যক্তিদের বেশিরভাগ দাবি করেছের পরিষ্কার রাস্তা ঝাড়ু প্রতীকী অর্থে দেয়া হয়েছিল, জনসচেতনতা বৃদ্ধির জন্য। আবার সমালোচনার শিকার ব্যক্তিদের কেউ কেউ সমালোচকদেরও কড়া সমালোচনা করেছেন। তারা বলছেন, এক শ্রেণির লোক যারা নিজেরা কোনো পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচিতে অংশ নেবে না, তবে অন্যের সমালোচনায় সবার আগে থাকবে।

সম্প্রতি যে সব কর্মসূচিতে এ ধরনের কার্যক্রম চালানো হয়েছে, তার বেশিরভাগই ডেঙ্গু সচেতনতামূলক কর্মসূচি। যদিও ডেঙ্গু সচেতনতার সাথে রাস্তা ঝাড়ু দেয়াটা মানানসই নয়। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বাসা বাড়ি বা তার আশপাশে জমে থাকা পরিষ্কার পানি থেকেই এডিস মশার উৎপত্তি। তাই আশপাশ পরিষ্কার রাখার পাশাপাশি কোথাও পানি জমে থাকতে না দেয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন তারা।

Ads
Ads