৪ মে বাংলাদেশে আঘাত হানতে পারে ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’

  • ১-মে-২০১৯ ০৭:৫৬ অপরাহ্ন
Ads

 

:: ভোরের পাতা ডেস্ক ::

ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ এখন গভীর সমুদ্রে বাংলাদেশ থেকে এক হাজার কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে। এটি যেভাবে এগিয়ে আসছে, তা অব্যাহত থাকলে এরপর শুক্রবার (৩ মে) আঘাত হানবে ভারতে ওড়িশা এবং পশ্চিমবঙ্গে। তারপর উপকূল ঘেঁষে বাংলাদেশের ওপর দিয়ে চলে যাবে। সেক্ষেত্রে ঝড়টি শনিবার (৪ মে) খুলনা, সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, পিরোজপুর উপকূলে আঘাত হানতে পারে।

বুধবার (১ মে) আবহাওয়া অধিদফতরের পরিচালক ছামছুদ্দিন আহমেদ এসব তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি আরও জানান, গতিপথ পরিবর্তন করলে ঝড়টি সরাসরি বাংলাদেশের উপকূলে আঘাত হানবে। তখন খুলনা সাতক্ষীরা, বাগেরহাট, পিরোজপুর, পটুয়াখালী, বরগুনা, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার এলাকায় ওপর দিয়ে বয়ে যাবে ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’।

ঝড়টির অবস্থানের প্রসঙ্গে আবহাওয়া অফিস থেকে জানানো হয়, দক্ষিণ-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থানরত অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’ উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়ে একই এলাকায় অবস্থান করছে। ঝড়টি বুধবার (১ মে) দুপুরে চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ২৭৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ১৯০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ৯৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে এবং পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ১ হাজার ১০০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে অবস্থান করছিল। এটি আরও ঘণীভূত হয়ে উত্তর বা উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হচ্ছে।

আবহাওয়া অধিদফতরের সিনিয়র আবহাওয়াবিদ আব্দুল মান্নান, এখন পর্যন্ত এটি অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় হিসেবে আছে। ঘূর্ণিঝড় কেন্দ্রের ৭৪ কিলোমিটারের মধ্যে বাতাসের একটানা সর্বোচ্চ গতিবেগ ঘণ্টায় ১৬০ কিলোমিটার, যা দমকা অথবা ঝড়ো হাওয়ার আকারে ১৮০ কিলোমিটার পর্যন্ত বৃদ্ধি পাচ্ছে।

Ads
Ads