রূপগঞ্জে গ্যাস বিস্ফোরণে দেয়াল ধসে নিহত ২

  • ২২-Apr-২০১৯ ১১:২৬ পূর্বাহ্ণ
Ads

:: ভোরের পাতা ডেস্ক ::

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের সাওঘাট এলাকায় একটি বাড়িতে গ্যাস বিস্ফোরণে দেয়াল ধসে দুই শ্রমিক নিহত হয়েছেন। এ সময় দগ্ধ হয়েছেন আরও সাতজন।

রোববার দিবাগত রাত সোয়া ৩টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- শামীম (৩০) ও রাকিব (২৫)। নিহত দুজনই স্থানীয় নেক্সট এক্সোসরিস লিমিটেড নামে পোশাক কারখানার শ্রমিক হিসেবে কাজ করতেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পাশে তিতাস গ্যাসের হাইপ্রেসারের পাইপলাইন থেকে নিজের দোতলা বাসায় গ্যাস সংযোগ নেন আইনজীবী রাবেয়া আক্তার মিলি। হাইপ্রেসারের পাইপলাইন থেকে আবাসিক গ্যাস সংযোগ নেয়াটা পুরোটাই ঝুঁকিপূর্ণ। এ ছাড়া শবেবরাতের কারণে এলাকার সব মিল-কারখানা বন্ধ থাকায় গ্যাসের প্রেসার বেশি ছিল। আইনজীবী রাবেয়া আক্তার মিলির বাসায় ভাড়া থাকতেন স্থানীয় নেক্সট এক্সোসরিস লিমিটেড নামে পোশাক কারখানার কয়েকজন শ্রমিক।

রোববার দিবাগত রাত সোয়া ৩টার দিকে হঠাৎ করে ওই বাসায় একটি বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। বিস্ফোরণে বিল্ডিংয়ের পুরো দেয়াল ভেঙে যায়। এতে পুরো এলাকা কেঁপে ওঠে। পরে স্থানীয়রা ঘটনাস্থলে এসে গুরুতর দগ্ধ অবস্থায় ছয়জনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটে ভর্তি করেন এবং তিনজনকে স্থানীয় ক্লিনিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়। এদের মধ্যে শামীম ও হেলাল বিশ্বাস ওরফে রাকিবকে মৃত ঘোষণা করেন সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা।

আহতরা হলেন- নেক্সট এক্সোসরিস লিমিটেড পোশাক কারখানার শ্রমিক তরিকুল ইসলাম, লিয়াকত আলী, হযরত আলী, আরিফ, আনোয়ার হোসেন, ফারুক মিয়া, আরিফুর রহমান। আহতদের মধ্যে লিয়াকত ও আরিফের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

এ ব্যাপারে ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর রফিকুল হক বলেন, গ্যাস বিস্ফোরণে দুজন মারা গেছেন। ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালেই তাদের ময়নাতদন্ত হবে। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এদিকে বাড়ির মালিক রাবেয়া আক্তার মিলি বলেন, অন্যরা যেভাবে অবৈধ গ্যাস সংযোগ নিয়েছে আমিও সেভাবেই নিয়েছি। তবে আমার বাড়িতে পরিকল্পিতভাবে এ ঘটনা ঘটানো হয়েছে।

তিতাস গ্যাসের সোনারগাঁও জোনের সুপারভাইজার ইসমাইল হোসেন বলেন, এর আগে এ ধরনের আরও বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটেছে। হাইপ্রেসার লাইন থেকে অবৈধভাবে গ্যাস সংযোগ নেয়া। আবার শবেবরাত উপলক্ষে সব মিল-কারখানা বন্ধ। সব মিলিয়ে গ্যাসের অধিক প্রেসার ছিল। হয়তো বিল্ডিংয়ের ভেতরে গ্যাস ছড়িয়ে ছিল। আগুনের সংস্পর্শে গ্যাস বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটতে পারে।

Ads
Ads