স্ত্রীকে হত্যার পর আলামত ধ্বংস করতে লাশে আগুন

  • ১৭-Apr-২০১৯ ০৪:৫৩ অপরাহ্ন
Ads

 

:: ভোরের পাতা ডেস্ক ::

রাজধানীর মুগদায় পারিবারিক কলহের জেরে স্ত্রীকে শ্বাসরোধে হত্যার পর লাশের শরীরে আগুন দিয়েছে কমল হোসেন। হত্যার পর আলামত ধ্বংস করতে লাশে কেরোসিন ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেয়া হয়। 

বুধবার (১৭ এপ্রিল) সকালের এ ঘটনায় অভিযুক্ত স্বামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠায়।

নিহত গৃহবধূর নাম হাসি বেগম (২৭)। তার বাড়ি দিনাজপুর জেলায়। তিনি স্বামী কলম হোসেনের সঙ্গে দক্ষিণ মুগদার ব্যাংক কলোনি এলাকায় ভাড়া বাসায় থাকতেন। 

মুগদা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রণয় কুমার সাহা পিবিএ’কে জানান, ৮ মাস আগে হাসি ও কমলের বিয়ে হয়। এটি উভয়েরই দ্বিতীয় বিয়ে। পারিবারিক কলহের জেরে স্ত্রীকে গলাটিপে হত্যা করেন কমল। আলামত মুছে ফেলতে স্ত্রীর লাশে কেরোসিন দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেন তিনি। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে। ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

 

/কে 

Ads
Ads