পাটুরিয়ায় আজ থেকে পন্যবাহী ট্রাক পারাপার বন্ধ

:: জালাল উদ্দিন ভিকু, মানিকগঞ্জ ::

ঈদযাত্রায় মানিকগঞ্জের শিবালয়ের পাটুরিয়া ফেরিঘাট এলাকায় যাত্রী যানবাহনের চাপ বাড়ছে। আজ থেকে ঈদের আগের দিন পর্যন্ত পাটুরিয়া দৌলতদিয়া নৌ পথে পন্যবাহি ট্রাক পারাপার বন্ধ রাখা হবে। গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে ঘাটের পরিস্থিতি এবং নদীপথে যাত্রীদের নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও উদ্যোগ পরিদর্শন করেছেন নৌপুলিশের উপমহাপরিদর্শক (ডিআইজি) শেখ মুহম্মদ মারুফ হাসান। এ সময় তাঁর সঙ্গে নৌপুলিশের অতিরিক্ত ডিআইজ মাহবুবুর রহমান, নৌপুলিশের পুলিশ সুপার আবদুল্লাহ আরেফ এবং মানিকগঞ্জের পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীমসহ বিআইডব্লিউটিসি ও বিআইডব্লিউটিএর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা জানান, দেশের দক্ষিণ এবং দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ২১টি জেলার মানুষ মানিকগঞ্জের পাটুরিয়া ও রাজবাড়ীর দৌলতদিয়া নৌপথে ঢাকায় যাতায়াত করে। ঈদে ঘরমুখো এসব জেলার মানুষ এই পথ দিয়ে বাড়ি ফেরে। এ কারণে ঈদের আগে পাটুরিয়ায় যাত্রী ও যানবাহনের চাপ বেড়ে যায়।

বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন সংস্থার (বিআইডব্লিউটিসি) আরিচা কার্যালয় সূত্র জানায়, এই ঈদে ঘুরমুখো মানুষের ভোগান্তির বিষয়টি বিবেচনা করে এই নৌপথে ফেরির সংখ্যা বাড়ানো হয়েছে। গতকাল এই পথে আটটি রো রো (বড়), সাতটি ইউটিলিটি (মাঝারি) ও চারটি কে-টাইপসহ (ছোট) মোট ১৯টি ফেরি দিয়ে যানবাহন পারাপার করা হয়। আজ বুধবার আরেকটি রো রো ফেরি এই পথে যানবাহন পারাপারে যুক্ত হওয়ার কথা রয়েছে।

গতকাল দুপুরে সরেজমিনে দেখা যায়, যাত্রীদের নির্বিঘেœ যাতায়াতে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের মানিকগঞ্জ অংশে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ স্থানে পুলিশ সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছেন। পাটুরিয়া ঘাট এলাকায় যানজট নিয়ন্ত্রণে মহাসড়কের শিবালয় উপজেলার টেপড়া বাসস্ট্যান্ড এলাকায় পুলিশ ব্যক্তিগত ছোট গাড়িগুলোকে টেপড়া-নালী সড়ক দিয়ে চলাচলে সহায়তা করছে। এসব ছোট গাড়িগুলোকে পাটুরিয়ার পাঁচ নম্বর ঘাট দিয়ে নদী পার করা হচ্ছে।

এ ছাড়া যাত্রীবাহী বাস ও পণ্যবাহী ট্রাকগুলো উথলী-পাটুরিয়া সংযোগ সড়ক হয়ে সরাসরি ঘাট এলাকায় যাচ্ছে। গতকাল বেলা তিনটার দিকে এসব যানবাহনের চাপ বেড়ে যাওয়ায় পাটুরিয়া ঘাট এলাকা ছেড়ে এক কিলোমটিার দূরে আরসিএল মোড় পর্যন্ত সড়কের দুই পাশে পারের অপেক্ষায় ছিল।

বিআইডব্লিউটিসির আরিচা কার্যালয়ের ব্যবস্থাপক (বাণিজ্য) তানভীর হোসেন বলেন, ঈদের আগে এই নৌপথে ২০টি ফেরি দিয়ে যানবাহন ও যাত্রী পারাপার করা হবে। যাত্রী ও যানবাহনের চাপ বাড়লেও এই পর্যাপ্তসংখ্যক ফেরি দিয়ে নির্বিঘেœ পারাপার করা হবে।

ঘাটের পরিস্থিতি পরিদর্শন: গতকাল দুপুরে ঘাটের পরিস্থিতি এবং নদীপথে যাত্রীদের নিরাপত্তা ব্যবস্থা ও উদ্যোগ পরিদর্শন করেছেন নৌপুলিশের উপমহাপরিদর্শক (ডিআইজি) শেখ মুহম্মদ মারুফ হাসান। মানিকগঞ্জের শিবালয়ের আরিচা ও পাবনার কাজির হাট নৌপথে ১৯টি স্পীড বোট চলাচল করে। ঈদের আগে এসব স্পীড বোটে যাত্রীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করা হয়।

এ বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ডিআইজি শেখ মুহম্মদ মারুফ হাসান বলেন, এই অভিযোগ তিনিও শুনেছেন। যাত্রীদের কাছ থেকে নির্ধারিত ভাড়া নেওয়ার বিষয়ে তিনি নৌ-পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছেন। অতিরিক্ত ভাড়া ও অতিরিক্ত যাত্রী পরিবহন করলে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। নৌ-পুলিশের পক্ষ থেকে সবধরণের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। সকল যাত্রীই যাতে গন্তব্যে পৌঁছে স্বজনদের সাথে ঈদ উদযাপন করতে পারে সে লক্ষ্যে পাটুরিয়া,দৌলতদিয়া ঘাটসহ দেশের অন্যান্য নৌ-পথে নৌ-পুলিশের সদস্যরা আন্তরিভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

মানিকগঞ্জ পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীম বলেন, যাত্রী পারাপার নিশ্চিত করতে বুধবার থেকে শুক্রবার পর্যন্ত মহাসড়কে ট্রাক চলাচল বন্ধ রাখা হবে। এছাড়া জরুরী ও সরকারী কাজে নিয়োজিত ট্রাক ছাড়া সকল ধরণে ট্রাক পারাপার বন্ধ রাখা হবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here