নিয়োগ দশ হাজার আর আবেদন ছয় লাখ!

:: ভোরের পাতা অনলাইন ::

সারাদেশে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শূন্য আসনে রাজস্ব খাতভুক্ত ‘সহকারী শিক্ষক নিয়োগ-২০১৪’ পরীক্ষা চলছে। মামলাজনিত কারণে গত চার বছর এই নিয়োগ কার্যক্রম স্থগিত হয়ে পড়েছিল। চলতি বছরের মার্চে আবারও এ নিয়োগ কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে।

ইতোমধ্যে প্রথম ধাপে ১২ জেলায় এই পরীক্ষা হয়েছে। আগামী ১১ মে হবে দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষা। জানা যায়, মোট চার ধাপে এই পরীক্ষা সম্পন্ন করা হবে। দ্বিতীয় ধাপে এ পরীক্ষায় ২০ জেলায় অংশ নেবেন প্রায় তিন লাখ প্রার্থী।

দ্বিতীয় ধাপে যে জেলাগুলোয় পরীক্ষা হবে- চাঁপাইনবাবগঞ্জ, কুষ্টিয়া, মাগুরা, বাগেরহাট, শেরপুর, মানিকগঞ্জ, রাজবাড়ী, ফরিদপুর, গোপালগঞ্জ, নোয়াখালী, কক্সবাজার, পিরোজপুর, পটুয়াখালী, ভোলা, সুনামগঞ্জ, হবিগঞ্জ, মৌলভীবাজার, পঞ্চগড়, ঠাকুরগাঁও ও লালমনিরহাট।

অন্যদিকে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর (ডিপিই) সূত্র জানায়, এই নিয়োগে সারা দেশে ১০ হাজার সহকারী শিক্ষক নেয়া হবে। তার বিপরীতে সারাদেশ থেকে প্রায় ছয় লাখ আবেদন জমা পড়ে। অর্থাৎ গড় হিসেবে প্রতি আসনে লড়ছেন ৬০ জন প্রার্থী।

উল্লেখ্য, প্রধম ধাপের লিখিত পরীক্ষা চলতি মাসের ২০ এপ্রিল অনুষ্ঠিত হয়। সেদিন ১২ জেলায় পরীক্ষা হয়। সেখানে প্রায় দুই লাখ প্রার্থী পরীক্ষায় অংশ নেন।

নিয়োগ পরীক্ষার ও এমআর শিট পূরণের নির্দেশনাবলি ও পরীক্ষা-সংক্রান্ত অন্যান্য তথ্য www.dpe.gov.bd এই ওয়েবসাইটে পাওয়া যাবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here