‘ওবায়দুল কাদের আওয়ামী লীগের ‘কাউয়া’, বদির ইয়াবা পার্টনার’

::ভোরের পাতা ডেস্ক::

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের সম্পর্কে আপত্তিকর মন্তব্য করেছেন কক্সবাজার সিটি কলেজের প্রভাষক ও জেলা ছাত্রলীগের তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক জমির জামির।
সোমবার নিজের ফেসবুক পোস্টে তিনি আপত্তিকর মন্তব্য করেন। এরপর থেকে সমালোচনার ঝড় উঠেছে। স্থানীয় ছাত্রলীগ ও যুবলীগের নেতাকর্মীরা জমিরের কড়া সমালোচনা করছেন।
ফেসবুক পোস্টে জমির জামি ওবায়দুল কাদেরকে আওয়ামী লীগের ‘কাউয়া’ আখ্যায়িত করেছেন। মূলত ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগে বহিরাগত ও সুবিধাবাদী নেতাদের বোঝাতে ‘কাউয়া’, ‘হাইব্রিড’ জাতীয় শব্দের পরিচিতি ঘটান ওবায়দুল কাদের।

ছাত্রলীগের এই নেতা লিখেছেন, ‘জনাব ওবায়দুল কাদের সাহেব আপনি যে দলের জন্যে কাউয়া সেটা আবার প্রমাণ করলেন। আপনার কাছে জোট সরকারের আমলের নির্যাতিত তৃণমূলের নেতা একরামুল হকের মূল্যায়ন থাকবে না সেটা আমরা আগেই অবগত হয়েছি। আপনার কাছে তৃণমূলের নেতা একরামের চেয়ে অনুপ্রবেশকারী বাবা বদি বেশি গুরুত্বপূর্ণ।’

তিনি বলেন, ‘যখন আপনি কক্সবাজার এসেছিলেন, বদিকে উদ্দেশ্য করে বলেছিলেন— তুমি আর নমিনেশন পাচ্ছো না। আবার যখন আপনি টেকনাফে গেলেন এবং ইয়াবার টাকার বান্ডিল পেয়েছেন, তখন বললেন— বদি হচ্ছে আগামী নির্বাচনে টেকনাফ উখিয়ার নৌকার মাঝি।’
জমির জামিরের ভাষ্যে, ‘একমুখে দু’কথা যে বলে সে হচ্ছে সুসময়ের কাউয়া। আপনার মত কাউয়ার কারণে দলে নিবেদিত প্রাণ তৃণমূলের নেতা-কর্মীদের প্রতিনিয়ত আমরা হারাচ্ছি।’

জমির জামিরের এই স্ট্যাটাসের কড়া সমালোচনা করেছেন কক্সবাজার জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইসতিয়াক আহমেদ জয়।

তিনি গণমাধ্যমকে বলেন, ‘ওবায়দুল কাদের আমাদের অভিভাবক সংগঠন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। তাকে নিয়ে যে স্ট্যাটাস দিয়েছেন জমির জামি, তা সংগঠনবিরোধী কাজ।’

জয় আরও বলেন, ‘জমির জামি ইতোমধ্যে স্বেচ্ছায় ছাত্রলীগ থেকে পদত্যাগ করেছেন। তিনি এখন যুবলীগের রাজনীতি করছেন।’

তবে কক্সবাজার জেলা যুবলীগের সভাপতি সোহেল আহমেদ বাহাদুর গণমাধ্যমকে বলেন, ‘জমির জামি যুবলীগের কোনো পদে নেই। তবে মাঝেমধ্যে তাকে সংগঠনের কর্মসূচিতে দেখা যায়।’

তিনি আরও বলেন, ‘জমির জামিরের স্ট্যাটাসটি খুবই কুরুচিপূর্ণ। নিজ দলের নেতাদের বিরুদ্ধে অশালীন মন্তব্যকারী তার মতো ব্যক্তিদের চিহ্নিত করে রাখা দরকার। আশা করছি, কেন্দ্রীয় সংগঠন তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবে।’

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here